নিউজ ফাস্ট

যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসীরা ১৮ দিনে পাঠিয়েছেন ৭০ কোটি টাকা














করোনা মহামারিতেও স্বজনের কাছে প্রবাসীদের অর্থ প্রেরণে (রেমিটেন্স) ভাটা পড়েনি। অধিকন্তু গত বছরের ঈদুল ফিতরের আগের একই সময়ের চেয়ে এবার ২০ মে পর্যন্ত ১৮ দিনে সোনালী এক্সচেঞ্জের মাধ্যমে প্রবাসীরা এক মিলিয়নেরও (৮ কোটি ৪৫ লাখ) অধিক ডলার যুক্তরাষ্ট্র থেকে পাঠিয়েছেন।

সোনালী এক্সচেঞ্জের সিইও এবং প্রেসিডেন্ট দেবশ্রী মিত্র ২১ মে বৃহস্পতিবার এ সংবাদদাতাকে জানান, করোনা মহামারির কারণে যুক্তরাষ্ট্র লকডাউনে থাকায় সোনালী এক্সচেঞ্জের ১০টি শাখাও বন্ধ করা হয়েছিল। এরপর খোলা হয় ২ মে। মিশিগান শাখা খোলা হয়েছে মাত্র তিনদিন আগে।

দেবশ্রী মিত্র জানান, ২০ মে পর্যন্ত ১৮ দিনে ১২৫৭৯ জন প্রবাসী বাংলাদেশে পাঠিয়েছেন ৮.৪৫ মিলিয়ন ডলার (প্রায় ৭০ কোটি টাকা)। চরম একটি অস্থিরতা এবং ৯০% জনই বেকার হয়ে ঘরে অবস্থান করা সত্ত্বেও স্বজনের কাছে ঈদ উপলক্ষে অর্থ প্রেরণের আগ্রহ একটুও কমেনি। কারণ, গত বছর ঈদের আগে ৩০ দিনে ১২.২২ মিলিয়ন ডলার পাঠিয়েছিলেন ১৯৫১০ জন। সে অনুযায়ী ১৮ দিনে পাঠানো অর্থের পরিমাণ দাঁড়ায় ৭.৩৩ মিলিয়ন ডলার।
দেবশ্রী মিত্র উল্লেখ করেন যে, সোনালী এক্সচেঞ্জের মাধ্যমে প্রেরিত অর্থ সময়ের ব্যবধানে কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই গন্তব্যে পৌঁছে যাচ্ছে। অর্থাৎ নিউইয়র্কে দিনের বেলায় পাঠানো অর্থ বাংলাদেশে কার্যদিবস শুরু হলেই একাউন্টে জমা হয়। এরফলে অবৈধ পথ পরিহার করে অনেক প্রবাসী সোনালী এক্সচেঞ্জে আগ্রহী হয়েছেন।







No comments