নিউজ ফাস্ট

ভয়েস অফ আমেরিকার প্রতিবেদন বিশ্বকাপে স্বীকৃতি না দেয়ায় প্রতিবাদ করেছে তাইওয়ান

 

তাইওয়ানের কর্মকর্তারা ফেডারেশন ইন্টারন্যাশনাল ডি ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন (ফিফা)-র কাছে ২০২২ সালের বিশ্বকাপে অংশগ্রহণের আগে তাদের নাগরিকদের চীনা নাগরিক হিসেবে নিবন্ধন করতে হবে- এমন নিয়মের প্রতিবাদ করেছেন। 


দ্য চাইনিজ তাইপেই ফুটবল অ্যাসোসিয়েশনের ডেপুটি সেক্রেটারি জেনারেল চিয়াও চিয়া-হাং বলেছেন, একজন নাগরিক সোমবার অনলাইনে পোস্ট করেছেন, জাতীয়তা হিসেবে ‘চীন’ বাছাই না করলে এবং চীন ভিত্তিক ফোন নম্বর প্রদান না করলে তিনি বিশ্বকাপে উপস্থিতি পাসের জন্য যোগ্যতা অর্জন করতে পারবেন না। পাসটি কাতারের ভেন্যুতে ভিসা হিসেবে কাজ করবে। এ ঘটনার পর চাইনিজ তাইপেই ফুটবল অ্যাসোসিয়েশন ফিফাকে একটি চিঠি পাঠিয়েছে। 


চিয়াও বলেছেন যে, ফিফা উত্তরে বলেছে তারা ঘটনাটি যাচাই করছে। তাইওয়ান এবং চীন ৮০ বছর ধরে রাজনৈতিক বিরোধের মধ্যে রয়েছে। চীন, স্ব-শাসিত তাইওয়ানকে তার ভূখণ্ডের অংশ হিসেবে দাবি করে। 

আর বেইজিং-এর কর্মকর্তারা জাতিসংঘের মাধ্যমে বিদেশি প্রতিষ্ঠানগুলোকে অনুরোধ করে, সুন্দরী প্রতিযোগিতা বা ক্রীড়া প্রতিযোগিতার মতো আয়োজনগুলোতে তাইওয়ানকে যেন চীনের অংশ হিসেবে অংশগ্রহণ করায়, অথবা অংশগ্রহণ করাতে অস্বীকৃতি জানানো হয়। আয়োজক প্রতিষ্ঠান এবং আয়োজক দেশগুলো প্রায়শই বেইজিং-এর সম্ভাব্য বাণিজ্য বা বিনিয়োগ সংক্রান্ত প্রতিহিংসা এড়াতে দেশটির কথা মেনে চলে। চীন বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম অর্থনীতির দেশ।


ইমেইলে পাঠানো একটি বিবৃতি মতে, তাইওয়ানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় কিছু নিয়ম পরিবর্তনের জন্যে বিশ্বকাপের জন্য নিয়োজিত কাতারের আয়োজক সংস্থার সাথে যোগাযোগ করেছে। বিবৃতিতে বলা হয়েছে, আমাদের প্রতি এই অবজ্ঞা মেনে নেয়ার কোনো উপায় আমাদের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নেই। এ ব্যাপারে কাতারের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মন্তব্য জানতে চাওয়া হলে, তারা কোনো জবাব দেননি। সূত্র : ভয়েস অফ আমেরিকার/ রয়টার্স


কোন মন্তব্য নেই